বুধবার জামিয়া পটিয়ার ইফতিতাহী দরস 

বুধবার জামিয়া পটিয়ার ইফতিতাহী দরস 

আগামী বুধবার ১৯ শে শাওয়াল ১৪৩৯ হিঃ মোতাবেক ৪ই জুলাই ২০১৮ খৃষ্টাব্দ রোজ বুধবার দক্ষিণ এশিয়ার প্রশিদ্ধ দীনি শিক্ষানিকেতন আল-জামিয়া আল-ইসলামিয়া পটিয়ার নতুন শিক্ষাবর্ষের ‘উদ্ভোধনী দরস’ যথানিয়মে আরম্ভ হবে, ইনশা আল্লাহ।

জামেয়ার মুহতামিম ও শায়খুল হাদীস আল্লামা আব্দুল হালিম বোখারী এতে সকল নবীন-প্রবীণ শিক্ষার্থীদের উপস্থিত থাকতে তাগিদ দিয়েছেন।

জামেয়ার শিক্ষাসচিব আল্লামা মুফতি জসীম উদ্দীন কাসেমী বলেন, গত ৮ই শাওয়াল শনিবার থেকে জামিয়ার সকল বিভাগে ভর্তি চলছে। ১৭ শাওয়াল সোমবার পর্যন্ত চলবে।

ভর্তি কার্যক্রম শেষে জামেয়ার শিডিউল অনুযায়ী বুধবার থেকে দরস আরম্ভ হবে। প্রতিদিন সকাল ১০:৩০ দরস আরম্ভ হয়ে বিকাল ৪:৩০ পর্যন্ত চলবে। আসরের পর থেকে মাগরিব পর্যন্ত বিরতি। মাগরিবের পর থেকে এশা পর্যন্ত তাকরার (পুনঃপাঠ) ও অধ্যয়ন। এশার নামাযের পর থেকে ১০:৩০ পর্যন্ত ব্যক্তিগত অধ্যয়ন। অতঃপর ঘুম ও বিশ্রাম এবং ভোর ৩ ঘটিকার সময় জাগ্রত হয়ে তাহাজ্জুদের নামায আদায় করতঃ অধ্যয়নে নিমগ্ন হওয়া। 

দরস আরম্ভ হওয়ার পূর্বে শিক্ষার্থীদের জামিয়ার গ্রন্থাগার থেকে কিতাবাদি সংগ্রহ করতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য যে, ‘আল-জামিয়া আল-ইসলামিয়া পটিয়া’ দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম দীনি প্রতিষ্ঠান। নুরাণী, হিফজ ও ইবতিদায়ী শ্রেণী থেকে দাওরায়ে হাদিস শরিফ (মাষ্টার্স সমমান) পর্যন্ত কিতাব বিভাগসমূহ যথা- কিরাত, ইফতা, তাফসির, হাদিস, আরবি ও বাংলা সাহিত্যের উচ্চতর গবেষণা বিভাগসমূহ পূর্ব থেকে চালু রয়েছে। তবে নতুন শিক্ষাবর্ষে জামিয়ার উচ্চতর গবেষণা বিভাগসমূহকে নতুনরূপে, নতুন আঙ্গিকে ঢেলে সাজানো হয়েছে। প্রত্যেক বিভাগের জন্য ‍সুনির্দিষ্ট বিভাগীয় প্রধান ও তত্ত্বাবধায়ক নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

জামেয়ার প্রাজ্ঞ-বিজ্ঞ শিক্ষকমন্ডলীর পাঠদানে শিক্ষার্থীরা ইলমী ও আমলী ময়দানে পরিপূর্ণ ইস্তিফাদা অর্জন করে পরিতৃপ্ত হবে এবং সফলতার দ্বারপ্রান্তে পৌঁছাবে বলে জামেয়া কর্তৃপক্ষ বদ্ধপরিকর।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on skype
Skype
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on print
Print

সংবাদ

নোটিশ